গেইলের দানবীয় শক্তির রহস্য

অনলাইন ডেস্ক ০৯:০০, ৬ এপ্রিল ২০১৯

বয়স ত্রিশ পেরোলেই বেশিরভাগ ক্রিকেটাররা ক্যারিয়ার শেষের দিন গুণতে থাকেন। অনেকেই বাকী জীবন কাটানোর জন্য বিকল্প আয়ের উৎস সৃষ্টিতেও উদ্যোগী হন। কিন্তু ক্যারিবীয় দানব ক্রিস গেইল যেন অন্য ধাতুতে গড়া। বয়স চল্লিশ ছুঁইছুঁই; এখনও দাপটের সঙ্গে খেলে চলছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট। বিশ্বের সকল ফ্র্যাঞ্চাইজি লিগে তার বিপুল চাহিদা। ১০ বছরের ছোট সতীর্থের থেকেও দুর্দান্ত তার ফিটনেস। কীভাবে এত দীর্ঘ সময় নিজের ক্যারিয়ার টেনে নিয়ে যাচ্ছেন ‘ইউনিভার্স বস’ সে এক রহস্য বটে!

চলতি আইপিএলের দ্বাদশ আসরে কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের জার্সিতে রানের পাগলা ঘোড়া ছুটিয়ে যাচ্ছেন গেইল। পাঞ্জাবের ফিজিও ব্রেট হারপ এবার ফাঁস করলেন গেইলের এত বিধ্বংসী ফর্মের কারণ। ৩৯ বছর ১৯৭ দিন বয়সী গেইলের এত ফিট থাকার গোপন ফর্মুলা হলো- যোগব্যায়াম। প্রতিদিন নিয়ম করে যোগব্যায়াম করতে মোটেও ভুল করেন না ক্যারিবীয় দানব। যোগব্যয়ামই তাকে একইসঙ্গে বিধ্বংসী ফর্ম এবং ফিট শরীর উপহার দিয়েছে।

ব্রেট হারপ বলেছেন, ‘সে নিজেকে একটি ম্যাচের জন্য প্রস্তুত করতে এবং শারিরীক সমস্যাগুলো দূর করতে প্রচুর পরিশ্রম করে। তাকে সবসময় সতেজ অবস্থায় পাওয়া যায় কারণ সে নিয়মিত দীর্ঘ সময় ধরে যোগব্যায়াম এবং স্ট্রেচিং করে। পাশাপাশি পর্যাপ্ত বিশ্রাম নেয়। এগুলোই তাকে ফিট শরীরের পাশাপাশি মানসিকভাবেও তরতাজা রাখে সবসময়। তার গায়ের জোর প্রচণ্ড; যদিও সেটা সে কখনই প্রকাশ করে না।’

কিংস ফিজিও আরও বলেন, ‘গেইল আসলে ন্যাচরালি ভীষণ শক্তিশালী। সে দীর্ঘদেহী কঠোর পরিশ্রমী একজন খেলোয়াড়। কিন্তু মাঠে সে শরীরের বিরুদ্ধে গিয়ে গায়ের জোরে কিছু করতে যায় না। প্রয়োজনীয় মুভমেন্টগুলোর দিকেই সে বেশি নজর দেয়। এই স্বভাবই গেইলকে ইনজুরির হাত থেকে বাঁচিয়ে দেয়। আমি তাকে কখনই দীর্ঘ মেয়াদে গায়ের জোর বাড়ানোর চেষ্টা করতে দেখিনি। সে  প্রতিটি ম্যাচ কিংবা প্রতিটি সিজন টার্গেট করে চলে।’

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ

টপ