প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ছাত্রীকে যৌনহয়রানির অভিযোগ

অনলাইন ডেস্ক ০৪:০০, ১৬ মে ২০১৯

বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার লক্ষীকোলা শাহ রওশন জালাল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে ৯ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে যৌনহয়রানির অভিযোগ পাওয়া গেছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে ওই ছাত্রীর দাদা আব্দুল জলিল মণ্ডল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, প্রায় দুই মাস পূর্বে উপজেলার লক্ষীকোলা শাহ রওশন জালাল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জাহাঙ্গীর আলম ৯ম শ্রেণির ছাত্রীকে তার শরীরের স্পর্শকাতর স্থান নিয়ে কটুকথা বলেন এবং শরীরে স্পর্শ করেন। এ ঘটনায় ওই ছাত্রী বাড়িতে এসে কেঁদে ফেলেন এবং অভিভাবকদের ঘটনা খুলে বলেন।

ছাত্রীর দাদা আব্দুল জলিল মণ্ডল জানান, বিষয়টি বিদ্যালয়ের সমস্ত শিক্ষকদের অবহতি করা হয়েছে এবং স্থানীয় ইউপি সদস্যের নিকট লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়। কিন্তু কারো কাছে কোন সুরাহা না পেয়ে ইউএনও বরাবর লিখিত অভিযোগ দেয়া হয়েছে।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আজিজার রহমান তাকে দেয়া অভিযোগের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, অভিযোগ পাওয়ার পর বিষয়টি নিয়ে প্রধান শিক্ষকের সাথে কথা বললে উল্টো প্রধান শিক্ষকই বিভিন্ন মাধ্যম দিয়ে তাকে শাষাণ। পরে অভিযোগকারীকে আইনের আশ্রয় নিতে বলা হয়েছে।

বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জাহাঙ্গীর আলম অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, বিদ্যালয়ের এডহক কমিটি নিয়ে দ্বন্দের জের ধরে আমাকে হেনস্তা করার জন্য মিথ্যা, বানোয়াট ও উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে অভিযোগ করা হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোছাঃ ফুয়ারা খাতুন জানান, তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

পাঠকের মন্তব্য

লাইভ

টপ